রবিবার , ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮

সিরাজুল ইসলাম শিশির, সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধিঃ
সিরাজগঞ্জ রায়গঞ্জ উপজেলায় বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে দুই দিন ধরে অনশন করছে এক স্কুল ছাত্রী।  ঘটনাটি ঘটেছে রায়গঞ্জ উপজেলার ব্রম্মগাছা ইউনিয়নের রান্ডিলা বাহাদুর গ্রামে।এমন ঘটনার পর থেকে বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে প্রেমিক । 
শনিবার (৯ জুন ২০১৮) সরজমিনে গিয়ে জানা যায়, কাজিপুর উপজেলার রতনকান্দি ইউনিয়নের কুড়াইলা গ্রামের হাবিবুর রহমানের কন্যা স্থানীয় কুড়াইলা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর ছাত্রী সুমাইয়া খাতুন (১৪) এর সাথে রায়গঞ্জ উপজেলার ব্রম্মগাছা ইউনিয়নের রান্ডিলা গ্রামের আবু সামার ছেলে, সিরাজগঞ্জ সরকারী কলেজের অর্নাস দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র মো. কাওসারের (২১) সঙ্গে এক বছর পূবে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। 
প্রেমের এক পর্যায়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ঐ ছাত্রীকে বিভিন্ন হোটেলে নিয়ে গিয়ে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তোলে কাওসার। 
গত শুক্রবার (৮ জুন ২০১৮) বিকেলে ওই ছাত্রী ঈদ মার্কেটের কথা বলে প্রেমিক কাওসারের বাড়িতে গিয়ে বিয়ের দাবিতে অনশন শুরু করে। এর পর থেকেই প্রতারক প্রেমিক  কাওসার পলাতক রয়েছে। 
এ ব্যাপারে প্রেমিকা সুমাইয়া খাতুন বলেন, ‘কাউসার আমাকে বিয়ে না করলে আমার আত্মহত্যা ছাড়া কোন উপায় থাকবে না। আমি তাকে স্বামী হিসাবে পেতে চাই। আর এই জন্য এই অনশন করছি।
এ ব্যাপারে ছেলের বাবা আবু সামার সাথে কথা বলতে চাইলে তিনি এড়িয়ে যান। পরে ছেলে পক্ষের মুরুব্বি স্থানীয় শিক্ষক আব্দুল করিম বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করেন।
ব্রম্মগাছা ইউনিয়নের স্থানীয় মেম্বার আব্দুর রাজ্জাক বলেন, বিষয়টি আমি জেনেছি তবে এখন কি অবস্থা সেটা আমার জানা নেই। এ নিয়ে এলাকায় এক উত্তেজনা পরিস্থতি সৃষ্টি হয়েছে । 

 সারা বাংলা থেকে আরোও সংবাদ

আর্কাইভ