বুধবার , ২৭ জুন e ২০১৮

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের দেওয়া ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বহাল রেখেছে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। গতকাল মঙ্গলবার এক রায়ে সুপ্রিম কোর্ট বলেছে, এই নিষেধাজ্ঞা ধর্মের ভিত্তিতে করা হয়নি। কয়েকটি মুসলিম দেশের নাগরিকদের ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিলেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। এই রায় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের জন্য এক বিরাট জয় বলে মনে করা হচ্ছে। খবর সিএনএন ও রয়টার্সের

মার্কিন সুপ্রিম কোর্টে ৯ জন বিচারপতি আছেন। এদের মধ্যে প্রধান বিচারপতি জন রবার্টসহ ৫ জন রক্ষণশীল বিচারপতি নিষেধাজ্ঞার পক্ষে এবং উদারপন্থী ৪ জন বিপক্ষে রায় দেন। গত বছরের সেপ্টেম্বরে তৃতীয়বারের মতো সাতটি মুসলিম দেশের ওপর ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা জারি করেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। তালিকায় আছে- ইরান, উত্তর কোরিয়া, সিরিয়া, লিবিয়া, ইয়েমেন, সোমালিয়া এবং ভেনিজুয়েলা। প্রথমে চাঁদও নিষেধাজ্ঞার আওতাভুক্ত ছিল। পরে দেশটির নাম বাদ দেওয়া হয়।
প্রধান বিচারপতি রবার্টস লিখেছেন, প্রেসিডেন্ট তার ক্ষমতাবলে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছেন। প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প সুপ্রিম কোর্টের রায়ের প্রশংসা করেছেন। সুপ্রিম কোর্টের রায়ে এই বার্তা পাওয়া গেল যে, অভিবাসন আইন অনুযায়ী প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের অনেক কিছু করার ক্ষমতা আছে। হাওয়াই রাজ্য এবং অন্যান্যরা ধর্মীয় বিদ্বেষের যে কথা বলেছিলেন তাও নাকচ করে দিয়েছেন প্রধান বিচারপতি।

বাদীরা নিষেধাজ্ঞাকে প্রেসিডেন্টের কর্তৃত্ব বহির্ভূত এবং মার্কিন সংবিধানের লঙ্ঘন বলে উল্লেখ করেছিলেন। কিন্তু প্রধান বিচারপতি বলেছেন, এটা ঠিক নয়। তবে চার বিচারপতি প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের সিদ্ধান্তকে সংবিধান বহির্ভূত বলে উল্লেখ করেছেন।

 সারাবিশ্ব থেকে আরোও সংবাদ

আর্কাইভ