বুধবার , ০৪ July ২০১৮

নগরকান্দা (ফরিদপুর) প্রতিনিধি:
ফরিদপুরের নগরকান্দায় পাট জাগ দেওয়াকে কেন্দ্র করে উভয় গ্রুপের সংঘর্ষে আহত মহিলার মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় আহত হাসিনা বেগম (৪৫) কে চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। 
২ জুলাই সোমবার সকালে উপজেলার পুরাপাড়া ইউনিয়নের বনকগ্রামের শুকুর শেখের সাথে পাট জাগ দেওয়াকে কেন্দ্র করে আপন চাচাতো ভাই বেলায়েত শেখের সাথে বিরোধ বাধে। এ নিয়ে উভয়ের মধ্যে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে উভয় পক্ষই দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বেলায়েত শেখের সমর্থক লাল্টু শেখ শুকুর শেখকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাথাড়ী কুপিয়ে জখম করে। এ সময় তার স্ত্রী হাচিনা বেগম ঠেকাতে গেলে তাকেও এলাপাথাড়ী কুপিয়ে জখম করে। আহত হাচিনা বেগমকে মুমুর্ষ অবস্থায় প্রথমে নগরকান্দা উপজেলা হাসপাতালে পরে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় মঙ্গলবার বিকালে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। ঢাকা নেওয়ার পথে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সে মারা যায়। এ ঘটনায় হাচিনা বেগমের স্বামী শুকুর শেখ বাদী হয়ে নগরকান্দা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে। ময়না তদন্তের জন্য লাশ ফরিদপুর মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। বর্তমানে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।
থানা অফিসার ইনচার্জ সৈয়দ লুৎফর রহমান বলেন, এ ব্যাপারে একটি হত্যা মামলা গ্রহন করা হয়েছে। আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

 সারা বাংলা থেকে আরোও সংবাদ

আর্কাইভ