রবিবার , ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

হারের ম্যাচেও মালিঙ্গার রেকর্ড

  রবিবার , ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এশিয়া কাপের উদ্বোধনী ম্যাচে চমকের শেষ ছিল না। বাংলাদেশের বিপক্ষে শ্রীলঙ্কার শুরুটা দুর্দান্ত হলেও শেষ হাসি হেসেছে টাইগাররাই। পাশাপাশি পুরোটা সময়জুড়ে চমক-রোমাঞ্চ তো ছিলই। আর এসবের মাঝেই দীর্ঘ বিরতি শেষে ওয়ানডে ক্রিকেটে ফিরেই দুর্দান্ত এক রেকর্ড গড়েন লঙ্কান পেসার লাসিথ মালিঙ্গা।

গতকাল দুবাই ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট স্টেডিয়ামে এশিয়া কাপের উদ্বোধনী ম্যাচে মুখোমুখি হয় বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা। মাত্র ১ রানেই ২ উইকেট তুলে নিয়ে বাংলাদেশকে চাপে ফেলে দেন মালিঙ্গা। পরে ইনিংসের মাঝে আরও দুই উইকেট তুলে নিয়ে এশিয়া কাপের ইতিহাসে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি বোলারের তকমা এখন লঙ্কান এই ফাস্ট বোলারের দখলে। 

এদিন ম্যাচের শুরুতে মাত্র ১ রানেই ২ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে যায় টাইগাররা। এর মধ্যে হাতে ব্যথা পেয়ে ‘রিটায়ার্ড হার্ট’ হয়ে ওপেনার তামিম ইকবাল মাঠ ছেড়ে ওঠে এলে তা বাংলাদেশ দলের জন্য আরও কঠিন পরিস্থতি সৃষ্টি করে। ইনিংসের শুরুতে দুই উইকেট হারানোর ওই বিপর্যয়ের কারণ লঙ্কান ফাস্ট বোলার লাসিথ মালিঙ্গা।

তবে শুরুর বিপর্যয় সত্ত্বেও তৃতীয় উইকেট জুটিতে ১৩১ রানের অসাধারণ এক জুটি গড়ে দলকে বিপদমুক্ত করেন মুশফিকুর রহিম (১৪৪) ও মোহাম্মদ মিথুন (৬৩)। 

নিজের দ্বিতীয় স্পেলে বোলিং করতে এসে মিথুনের উইকেট তুলে নিয়ে এই জুটি ভাঙেন মালিঙ্গা। নিজের পরের ওভারে মোসাদ্দেক হোসেনের উইকেট তুলে নিয়ে বাংলাদেশের বড় সংগ্রহের পথে বাধা হয়ে দাঁড়ান এই লঙ্কান পেসার।

যদিও শেষদিকে দ্রুত রান তুলে বাংলাদেশকে ২৬১ রানের সংগ্রহ এনে দেন মুশফিক। লঙ্কানদের মাত্র ১২৪ রানে অল-আউট করে ১৩৭ রানের বড় জয়ও তুলে নিয়েছে বাংলাদেশ। 

তবে দলের পরাজয়েও ব্যক্তিগত অর্জনে কিন্তু ঠিকই উজ্জ্বল মালিঙ্গা। ১০ ওভার বল করে ২ মেডেনসহ মাত্র ২৩ রান খরচে ৪ উইকেট তুলে নিয়ে এশিয়া কাপে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারের রেকর্ড গড়া হয়ে গেছে মালিঙ্গার। বর্তমানে ১৪ ম্যাচ খেলে ৩২ উইকেট নিয়ে এই টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি এখন মালিঙ্গা। তার আগে এই রেকর্ডের মালিক ছিলেন তারই স্বদেশী সাবেক স্পিন লিজেন্ড মুত্তিয়া মুরালিধরন। এশিয়া কাপে ২৪ ম্যাচ খেলে ৩০ উইকেট নিয়েছেন মুরালিধরন। 

 খেলাধূলা থেকে আরোও সংবাদ

আর্কাইভ