বৃহস্পতিবার , ১৮ July ২০১৯ |

বৃষ্টি পড়লেই রেনকোটে আশ্রয়?

ত্বকের সংক্রমণ এড়াতে অবশ্যই খেয়াল রাখুন এই সব

অনলাইন ডেস্ক   সোমবার , ০৮ July ২০১৯

আগে ভাবা হত শীতে কাঁথা আর বর্ষায় ছাতা— এই দুইয়ের চেয়ে মিত্র কেউ হয় না। কিন্তু সে ভাবনার দিনকাল গিয়েছে। এখন ছাতার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বর্ষা রোখে বর্ষাতি। সহজেই যাকে রেনকোট বলে ডাকেন।


তবে বর্ষাতি খোলা-পরার ব্যাপারে কিছু সাবধানতা মেনে চলতে হয়। এই সময়টায় ত্বকের সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়ে। বৃষ্টি হলেও ভ্যাপসা গরমের হাত থেকে মুক্তি নেই। তাই বৃষ্টির হাত থেকে বাঁচতে রেনকোট জড়ালে গরমে ঘেমেনেয়ে গায়ে ঘাম বসে যায়। ছোটদের বেলায় স্কুলে গিয়ে সঙ্গে সঙ্গে রেনকোট খুলে মেলে শুকিয়ে নেওয়া উচিত। তবে বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই শিশুরা ভিজে বর্ষাতি কোনও রকমে ভাঁজ করে ব্যাগে পুরে রাখে। সেই ভিজে বর্ষাতিই আবার পরে নেয়। এর থেকে এক দিকে ত্বকের নানা সংক্রমণ অন্য দিকে ঠান্ডা লাগার ঝুঁকি বাড়ে। শুধু বর্ষাতিই বা কেন ভিজে জুতো-মোজা পরে থাকলেও পায়ে জীবানুর সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়ে।

এই সময়টায় বিভিন্ন জীবাণুর সংক্রমণের মধ্যে ফাঙ্গাস অর্থাৎ ছত্রাকের মাধ্যমে ক্ষতি হওয়ার প্রবণতা বেশি দেখা যাচ্ছে। বিশেষ করে যে সব শিশুর ওজন স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি, তাদের সংক্রমণের প্রবণতা তুলনামূলক ভাবে কিছুটা বেশি। বেশির ভাগ ক্ষেত্রে জীবাণুরা আমাদের ত্বকের উপরে ঘোরাফেরা করে। সুযোগ বুঝলেই আক্রমণ করে একেবারে নাজেহাল করে দেয়। এই সময়টায় বাতাসেও জীবাণুরা ভেসে বেড়ায়। ত্বকে ঘাম জমলে জীবানুরা দ্রুত সেখানে বংশবিস্তার করতে পারে। বর্ষায় যে সব ত্বকের সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়ে সেগুলি একে একে জেনে নেওয়া যাক।

 ফিচার থেকে আরোও সংবাদ

ই-দেশকাল

আর্কাইভ