বুধবার , ১৩ নভেম্বর ২০১৯ |

তেল-গ্যাস-পর্যটন-কৃষিখাতে বিনিয়োগে আগ্রহী ব্রুনাই

অনলাইন ডেস্ক   বৃহস্পতিবার , ৩১ অক্টোবর ২০১৯

কৃষিমন্ত্রী আব্দুর রাজ্জাক ও ব্রুনাইয়ের রাষ্ট্রদূত হাজী হারিস ওথম্যানের সাক্ষাৎ।

দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশ ব্রুনাই বাংলাদেশের তেল, গ্যাস, পর্যটন, মৎস্য, প্রাণি ও কৃষিখাতে বিনিয়োগ করতে আগ্রহী বলে জানিয়েছেন কৃষিমন্ত্রী ড. মো. আব্দুর রাজ্জাক।

বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) মন্ত্রণালয়ে নিজ অফিসকক্ষে ঢাকায় নিযুক্ত ব্রুনাইয়ের রাষ্ট্রদূত হাজী হারিস ওথম্যানের সঙ্গে সাক্ষাত শেষে এসব কথা বলেন কৃষিমন্ত্রী।

মন্ত্রী বলেন, ব্রুনাই তার চাহিদার ৮০ থেকে ৯০ শতাংশ শাকসবজিই বাইরের দেশ থেকে আমদানি করে। বাংলাদেশ কৃষিতে বেশ সাফল্য অর্জন করছে। তাই তারা এখান থেকে কৃষিজাত পণ্য ও মাংস আমদানি করতে চায়। এক সময়কার খাদ্য ঘাটতির বাংলাদেশ আজ খাদ্য রফতানীর দেশে উপনীত হয়েছে। চাল, শাকসবজি, আলুসহ নান কৃষিজাত পণ্য আমরা রফতানি করতে পারি।

বাংলাদেশের আতিথেয়তার প্রশংসা করে ব্রুনাই রাষ্ট্রদূত জানান, মৎস্য, প্রাণি, তেল, গ্যাস, পর্যটনসহ কৃষিখাতে বিনিয়োগ করতে আগ্রহী তারা। এক্ষেত্রে ব্রুনাইয়ের ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশ সফরে নিয়ে আসার কথাও জানান তিনি।

এছাড়া বাংলাদেশের ধানের জাত ব্রুনাইতে আবাদের আগ্রহের কথা জানান রাষ্ট্রদূত। এ ব্যাপারে কৃষি মন্ত্রণালয়ের অধীন বিভিন্ন গবেষণা প্রতিষ্ঠান পরিদর্শনের আগ্রহের কথাও জানান তিনি।

এ সূত্র ধরে আব্দুর রাজ্জাক বলেন, বাংলাদেশ ও ব্রুনাইয়ের মধ্যে অত্যন্ত চমৎকার সম্পর্ক। ধর্ম, মূল্যবোধ, সংস্কৃতিসহ অনেক অভিন্ন বিষয়ের ভিত্তিতে এ সম্পর্ক গড়ে উঠেছে। দুই দেশের মধ্যে সহযোগিতার নানা সুযোগ রয়েছে। আমাদের মধ্যে কৃষিখাতে আদান-প্রদান হতে পারে। বাংলাদেশের কোন ধরনের শস্যের জাত ব্রুনাইয়ের জন্য উপযোগী তা নির্ধারণ করতে কৃষি বিজ্ঞানী ও গবেষকদের ব্রুনাইয়ের কৃষিজমি পরিদর্শন করা প্রয়োজন। দুই দেশ সহযোগিতার হাত প্রসারিত করলে আমাদের সম্পর্কে নতুন মাত্রা যোগ হবে।

 অর্থ-বাণিজ্য থেকে আরোও সংবাদ

ই-দেশকাল

আর্কাইভ