রবিবার , ০৮ ডিসেম্বর ২০১৯ |

রংপুরে দুই শিশুসহ ‘গর্ভবতী’ নারীর লাশ উদ্ধার, স্বামী আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক   রবিবার , ০৮ ডিসেম্বর ২০১৯

এক বছর বয়সী ছেলে ও বাইশ মাস বয়সী মেয়েসহ তাদের মায়ের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। রোববার বেলা ১২টার দিকে রংপুর নগরীর কোতোয়ালি থানার বাহারকাছনা দোলা এলাকার এক বাড়ি থেকে এ তিনজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

নিহতরা হলেন আফসিয়া আকতার রত্না, তার ছেলে ছেলে নিশাদ (এক বছর) এবং মেয়ে নিহান (এক বছর ১০ মাস)। এ ঘটনায় রত্নার স্বামী আব্দুর রাজ্জাককে বাহারকাছনা দোলা এলাকায় তার বাড়ি থেকে আটক করেছে র‍্যাব।

রংপুর মেট্টোপলিটনের উপ-পুলিশ কমিশনার (অপরাধ) কাজী মুত্তাকী ইবনু মিনান বলেন, “প্রাথমিকভাবে মনে হচ্ছে ছেলে নিশাদ ও মেয়ে নিহানসহ গর্ভবতী স্ত্রী রত্নাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে নিজেও আত্মহত্যার চেষ্টা করেছে রাজ্জাক।”

পারিবারিক কলহের জেরে এ হত্যাকাণ্ড ঘটতে পারে মন্তব্য করে তিনি বলেন, “আমাদের মনে হচ্ছে রাজ্জাক মাদকাসক্ত।  “তাকে আটক করে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়েছে। চিকিৎসা শেষে জিজ্ঞাসাবাদে সত্য ঘটনা বের হবে।”

নিহত রত্নার ছোট ভাই শাহ আলম সরকার বাবু জানান, সকাল ১১টায় মোবাইলফোনের তাকে মাধ্যমে জানতে পারেন আমার বোন মারা গেছে। “আমি এসে দেখি আমার বোনকে মেরে ফেলেছে।

রত্নার বড় বোন শাহনাহাজ জানান, সম্প্রতি অটোরিকশা কেনার জন্যরাজ্জাককে ৭০ হাজার টাকা দিয়েছেন। “সে আমার বোনকে টাকার জন্য মেরে ফেলেছে। আমি তার ফাঁসি চাই।” এ ঘটনা তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন মেট্রোপলিটন কোতোয়ালি থানার ওসি আব্দুর রসিদ।

 সারা বাংলা থেকে আরোও সংবাদ

ই-দেশকাল

আর্কাইভ