বুধবার , ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২০ |

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:
নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে শীতলক্ষ্যা নদী দখল ও দূষণের দায়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে ৭ প্রতিষ্ঠানকে ৬  কোটি ২৭ টাকা লাখ ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেছে পরিবেশ অধিদপ্তর। প্রতিষ্ঠানগুলো ইটিপি ও পরিবেশগত ছাড়াই কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছিলো। 
মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি) দিনব্যাপী রূপগঞ্জের বিভিন্ন এলাকায় পরিবেশ অধিদপ্তরের মনিটরিং ও এনফোর্সমেন্ট উইং এর পরিচালক রুবিনা ফেরদৌসীর নেতৃত্বে এ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়। অভিযানে আরো উপস্থিত ছিলেন, ঢাকা এনফোর্সমেন্ট শাখার উপপিরচালক ডা: আব্দুল্লাহ্ আল মামুন, জেলা পরিবেশ অধিদপ্তরের উপপরিচালক সাঈদ আনোয়ার, পরিদর্শক মঈনুল হক, আব্দুল গফুর, পরিবেশ অধিদপ্তরের এনফোর্সমেন্ট শাখার মো.আসাদুল কিবরিয়া ও  আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যবৃন্দ। 
পরিবেশ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, ইটিপি ও পরিবেশ অধিপ্তরের ছাড়পত্র ব্যতিত কারখানায় পরিচালনার অপরাধে রূপগঞ্জের পূর্বাচল পেপার মিলকে ৪৬ লাখ ৮৭ হাজার ২০০ টাকা,অনন্ত পেপার মিলকে ৪৫ লাখ ২১ হাজার ৬০০ টাকা,ইউনুস পেপার মিলকে ৩ কোটি ১৬ লাখ ৫১ হাজার ২০০ টাকা, শীতলক্ষ্যা নদী দখল করে  ব্যবসায় পরিচালনার অপরাধে হাশেম পেপার মিলকে ৩লাখ টাকা, সুপার ক্রিস্টাল সল্ট মিল লিঃ কে ৯৪ লাখ ৫০ হাজার টাকা, এসি আই সল্ট লিঃ এর ১ কোটি টাকা এবং  আফজাল ফুড প্রোডাক্টসকে ২১ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।
জেলা পরিবেশ অধিদপ্তরের উপপরিচালক সাঈদ আনোয়ার জানান, জরিমানাকৃত প্রতিষ্ঠানগুলো দীর্ঘদিন যাবৎ ইটিপি ও পরিবেশ ছাড়পত্র ছাড়াই শীতলক্ষ্যা নদী দখল ও দূষণ করে ব্যবসায় কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছিলো। অভিযানে ৪টি পেপার মিল,দুটি লবণ তৈরী কারখানাসহ মোট সাতটি প্রতিষ্ঠানকে নদী দখল ও দূষণের দায়ে ৬ কোটি ২৭ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। শীতলক্ষ্যা নদী দূষণরোধ ও দখলমুক্ত করতে আমাদের এ ধরণের অভিযান পরিচালনা করবো। 


 


 

 আইন-আদালত থেকে আরোও সংবাদ

ই-দেশকাল

আর্কাইভ