বুধবার , ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

নিষেধাজ্ঞার মুখে থাকা ইরানের পাশে চীন-রাশিয়া

দেশকাল অনলাইন   শনিবার , ২১ জানুয়ারী ২০২৩

পশ্চিমারা যখন ইরানের বিরুদ্ধে নতুন করে নিষেধাজ্ঞার কথা ভাবছে, ঠিক তখনই তেহরানের পাশে দাঁড়াল মিত্র রাশিয়া ও চীন। ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসির সঙ্গে ফোনালাপে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক শক্তিশালী করতে মস্কো প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। অন্যদিকে তেহরানের সার্বভৌমত্ব ও আঞ্চলিক অখণ্ডতার প্রতি নিজেদের সমর্থন অব্যাহত রাখার ঘোষণা দিয়েছে বেইজিং।

সম্প্রতি ইরানবিরোধী একটি প্রস্তাব পাস হয়েছে ইউরোপীয় পার্লামেন্টে। ইরানের ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনীকে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে তালিকাভুক্ত করতে ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) প্রতি আহ্বান জানিয়ে প্রস্তাবটি পাস হয়। একইসঙ্গে, ইইউ নতুন করে ইরানের বেশ কয়েকজন উচ্চপদস্থ কর্মকর্তার ওপর নিষেধাজ্ঞার পরিকল্পনা করছে বলে জানায় সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

পশ্চিমাদের এমন পরিকল্পনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে ইরান। ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনী না থাকলে পুরো ইউরোপ আইএসের মতো জঙ্গি গোষ্ঠীর নিয়ন্ত্রণে থাকত বলেও দাবি করে তেহরান।


সংবাদমাধ্যম ইরান ইন্টারন্যাশনাল বলছে, ইইউর এমন কঠোর পরিকল্পনার মুখে আবারও ইরানের প্রতি নিজেদের সমর্থনের কথা জানিয়েছে রাশিয়া। ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসির সঙ্গে ফোনালাপে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক আরও শক্তিশালী করার ঘোষণা দিয়েছেন রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিন। একইসঙ্গে জ্বালানি ও পর্যটন খাতে তেহরান-মস্কো একসঙ্গে কাজ করবে বলে জানান তিনি।

এদিকে রাশিয়ার মতো ইরানের পাশে থাকার ঘোষণা দিয়েছে আরেক মিত্র দেশ চীন। দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, বিগত দিনের মতো আগামীতেও তেহরানের সার্বভৌমত্ব ও আঞ্চলিক অখণ্ডতার প্রতি নিজেদের সমর্থন অব্যাহত রাখবে বেইজিং। বিভিন্ন ক্ষেত্রে দুই দেশ সহযোগিতার মাত্রা আরও বাড়াবে বলেও জানায় চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

দৈনিক দেশকাল/জেডইউ/ ২১ জানুয়ারি, ২০২৩

 আন্তর্জাতিক থেকে আরোও সংবাদ

ই-দেশকাল

আর্কাইভ